জীবনের গল্প-২য় পর্ব (রকমারি বেস্টসেলার ৭) - আর জে কিবরিয়া | Buy Jiboner Golpo-Part-2 - RJ Kebria online | Rokomari.com, Popular Online Bookstore in Bangladesh

Product Specification

Title জীবনের গল্প-২য় পর্ব (রকমারি বেস্টসেলার ৭)
Author আর জে কিবরিয়া
Publisher বর্ণপ্রকাশ (ফার্মগেট)
Quality হার্ডকভার
ISBN 9789849202172
Edition 1st Published, 2016
Number of Pages 93
Country বাংলাদেশ
Language বাংলা

Product Summary

আমি। হ্যাঁ আমি জানি। এটা সবাই বলে। এমন উত্তর আশা করেনি সেই নির্মল হাসির ছেলেটি। প্রতুত্তরে বলল তাই ? কে বলল তোমাকে যে তোমার চোখ সুন্দর ? তোমার চোখ তো ছোট ছোট। চোখ সুন্দর হয় তাদের , যাদের চোখ হয় বড় বড়। এমন মজা করেই সেদিনের আড্ডা শেষ হল। ছেলেটা বলল আগামী রবিবার সকাল সাতটায় আসতে পারবে ? আমি ভেবেই উত্তরটা দিলাম- হ্যাঁ পারবো। সেই দিন ওর ক্লাস আছে আট টার সময়। যথা কথা তথা কাজ। ঘন কুয়াশায় আচ্ছন্ন সকালে সেই ছেলেটির অপেক্ষা আমার চারিদিকে কেউ নেই। তারপর কথা হল দু’জনের। সেই ছেলেটি একই ডিপার্টমেন্টের দুই বছরের সিনিয়র ভাই। জানা হল অনেক কিছু। যে ব্যাপারটা আমার মনে খুব নাড়া দিল । সেটা হচ্ছে এই যে এত সুন্দর এত মায়াবী একটা ছেলের জীবন অতিবাহিত হচ্ছে তার সৎ মায়েদের অত্যাচারে। মানুষের সৎ মা থাকতে পারে, কিন্তু সৎ মায়েদের অত্যাচার খুব মর্মস্পর্শী। তারপর এক মাস ছয় দিন পরে দুজনের দেখা। টিপু বলল আগামী বৃহস্পতিবার আমি তোমাকে বিয়ে করতে চাই। এমন কথার ছলে আমিও বলে দিলাম আগামী বৃহস্পতিবার কেন আজকেই না কেন ? আর তখনি সাত পাঁচ না ভেবেই মাত্র ১ মাস ছয় দিনের মাথায় ঐ দিনেই বিয়ে করলাম টিপুকে । ৫৫৫ টাকার দেনমোহর বিয়ে। শরীয়াত অনুযায়ী। এতে আমার কোন আপত্তি নেই। সে তো বলেছিল এক টাকা। যেখানে টাকার থেকে মন বড়, সেখানে টাকায় কি বা আসে যায় ? বাসায় এসে জানালাম কারও তেমন কোন আপত্তি নেই। কেননা টিপুর প্রতি সবার একটা সফট কর্ণার ছিল। এর আগে আমার পরিবার টিপুকে দেখেছে। অন্যদিকে টিপুর পরিবার থেকেও কোন আপত্তি করে নাই । টিপুর বড় ভাবী আমার জন্য একটা নীল শাড়ী পাঠিয়েছিল। তিনি মানুষ হিসেবে ভাল ছিলেন।

তারপর সেই নীল শাড়ী পরে অনেকটা নাটকের মত চলে গেলাম শ্বশুর বাড়ী। গিয়েই বললাম আর কোন টেনশন নেই। আমি এসে গেছি। বাড়ীর ছোট বউকে সবার উষ্ণ অভ্যর্থনা। বেশ ভালই কাটছিল। তবে একটা ব্যাপার কিছুতেই এডজাস্ট করতে পারছিলাম না। পরিবারের মানুষগুলো একে অন্যের কাছে বদনাম করত। যা কখনই আমি আমার পরিবারে দেখেনি। বিয়ের এক বছর পর আমার একটা ফুটফুটে সন্তান হলো। ওকে ঘিরেই এখন সব। এ যেন সৃষ্টিকর্তার পরম নেয়ামত। বেবীকে নিয়ে ব্যস্ত থাকায় পড়াশুনার বিঘ্ন ঘটল। এমন কি শারিরীক অসুবিধাও হলো।

শরীরে হিমোগ্লোবিন কমে গেলো। তাই আমাকে ব্লাড নিতে হল। এই প্রবলেম অবশ্য আমার ছোটবেলা থেকেই ছিল। ওদিকে টিপু সব সময় ধর্মের কথা বলত। কিন্তু সেই অনুযায়ী কাজ করত না। আমার প্রতি তার কোন খেয়াল নেই। ঐ পরিবারের ঐ পরিবেশে বেবীকে নিয়ে থাকটা দুরুহ ব্যাপার হয়ে গেল। তাই টিপুকে বলেই মোহাম্মদপুরে মায়ের বাসার সাথে বাসা নিলাম। এতে মায়ের সাপোর্ট পাব। ততদিনে টিপুর মাস্টার্সের রেজাল্ট হল। ফার্ষ্ট ক্লাস সেকেন্ড হওয়া টিপু এখন চাকরী করে “ইত্তেফাকে”। তখন থেকেই টিপুর নিষ্ঠুর আচরণ গুলোর আঁচ পেতে থাকি। একদিকে ছোট মনমন (মেয়ে) কাঁদছে অন্যদিকে আমি রান্না করছি। মেয়েকে নেওয়ার মত কেউ নেই। মেয়ে কাঁদছে কেন, এই বলে টিপু সেদিন রাত ১২ টায় বাসা থেকে বের হয়ে যায়।

মনে খুব আঘাত পাই। এখানে আমার কি বা করার আছে? তবুও মুখ খুলে কিছু বলি নি টিপুকে। এমন অসংখ্য ঘটনার মধ্যে টিপুর নিষ্ঠুরতা দেখা যায়। মনে হাজারো প্রশ্ন। শরীরে ব্লাড নিতে হয় আমার। সেজন্য একই বড় বোনের কাছে যেতে হত। কোন দিন টিপুর এ ব্যাপারে কোন দায়িত্ব ছিল না।

Author Information

রেডিও শ্রোতামহলে আর জে কিবরিয়া নামে ব্যাপক জনপ্রিয় রেডিও সঞ্চালক মো: গোলাম কিবরিয়া সরকার আত্মপ্রকাশ করেছেন লেখালেখির জগতেও। এগারো বছরের দীর্ঘ রেডিও ক্যারিয়ারে তিনি উপহার দিয়েছেন অনেক শ্রোতাপ্রিয় অনুষ্ঠান। সেই অনুষ্ঠানগুলোর নানারকম হৃদয়স্পর্শী, মুখরোচক গল্প আর অভিজ্ঞতার বর্ণনাই প্রকাশ পেয়েছে আর জে কিবরিয়া এর বই সমূহ-তে। আর জে কিবরিয়ার উচ্চ মাধ্যমিক পর্যন্ত শিক্ষাজীবন কেটেছে বগুড়া ক্যান্টনমেন্ট বোর্ড স্কুল এবং বগুড়া ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজে। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগ থেকে ১ম শ্রেণী নিয়ে স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকেই তিনি পরবর্তীতে এমফিল সম্পন্ন করেন। ২০০৬ সালে রেডিও টুডে-তে কথাবন্ধু হিসেবে যোগ দিয়ে শুরু করেন রেডিও ক্যারিয়ার। বর্তমানে এবিসি রেডিও এফএম ৮৯.২ এ ডেপুটি এক্সিকিউটিভ প্রডিউসার হিসেবে কর্মরত আছেন। তার নিজস্ব পরিকল্পনা এবং উপস্থাপনায় এবিসি রেডিওতে ‘হ্যালো ৮৯২০’, ‘যাহা বলিব সত্য বলিব’ এবং ‘ডর’ নামে একাধারে তিনটি অনুষ্ঠান প্রচারিত হচ্ছে বর্তমানে। এবিসি রেডিওতে কাজের পাশাপাশি মাছরাঙা টেলিভিশন ও ইউল্যাব-এও কাজ করছেন আর জে কিবরিয়া। এছাড়াও বিভিন্ন সময়ে কাজ করেছেন বিবিসি জানালা ও অনলাইন রেডিও লেমন টুয়েন্টি ফোর বাংলাদেশে। ই ভোটিং এর উপর একমাত্র বই ‘ই ভোটিং ও ডিজিটাল প্রসঙ্গের সহলেখক তিনি। অমর একুশে গ্ৰন্থ মেলা ২০১৬-তে প্রকাশিত হয় আর জে কিবরিয়া এর বই ‘জীবনের গল্প পার্ট-১’, যেখানে সম্পাদনার কাজটি করেছেন তিনিই। পাঠকমহলের ব্যাপক সাড়া পেয়ে এরপরের প্রতিটি বই মেলাতেই বের করতে হয়েছে বইটির সিরিজ। রেডিওতে ‘হ্যালো ৮৯২০’ অনুষ্ঠানটির শ্রোতাপ্রিয় গল্পগুলো নিয়েই সিরিজ আকারে সাজানো আর জে কিবরিয়া এর বই সমগ্র ‘জীবনের গল্প পর্ব ১-৪’। তাঁর উপস্থাপনায় তুমুল জনপ্রিয় আরেকটি রেডিও অনুষ্ঠান ‘যাহা বলিব সত্য বলিব’ থেকে অতিথিদের জীবনের গল্পগুলো ও তাদের ইংরেজি অনুবাদসহ সাজিয়েছেন বই ‘যাহা বলিব সত্য বলিব পার্ট-১’। ইলেকট্রনিক গণমাধ্যমে বিশেষ অবদানের জন্য তিনি ম্যানহাটন অ্যাওয়ার্ড (দক্ষিণ এশিয়া) ওয়ার্ল্ড সামিট ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড এবং পরপর তিনবার ইউনিসেফ কর্তৃক মীনা অ্যাওয়ার্ড লাভ করেন।

জীবনের গল্প-২য় পর্ব (রকমারি বেস্টসেলার ৭)

জীবনের গল্প-২য় পর্ব (রকমারি বেস্টসেলার ৭)

by আর জে কিবরিয়া

(6)

TK. 200

TK. 176

Save TK. 24 (12%)




Temporarily unavailable. click on Back Order for an availability notification by SMS/Email


icon

Order Delivery Tk. 50

icon

Purchase & Earn

Readers also bought

Details

Reviews and Ratings

Submit Review-Rating and Earn 30 points (minimum 40 words)

5.0

6 Ratings and 2 Reviews

Recently Sold Products

Recently Viewed